ইনসাইড বাংলাদেশযা ঘটছে

প্রধানমন্ত্রী চাইলে সব সম্ভব!

ক্যাসিনো! এই চলছে তাহলে দেশে! সত্যি আমি ভয়াবহ রকমভাবে বিস্মিত। বাংলাদেশ যে ইউরোপ-আমেরিকা কিংবা সিঙ্গাপুর হচ্ছে এবার আমার স‌ত্যি স‌ত্যি বিশ্বাস হচ্ছে। আর আজ‌কে ক্যাসি‌নো আবিস্কা‌রের পর আমার ম‌নে হ‌চ্ছে, রাষ্ট্রের নানা আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী, বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার সদস্য, বড় বড় ক্রাইম রিপোর্টার, অনুসন্ধানী সব সাংবাদিক সবার এখন অবসরে যাওয়া উচিত। নয়তো জাতির কাছে ক্ষমা চাওয়া উচিত।

ক্যা‌সি‌নোর ঘটনায় আমার আজ‌কে তিনটা কথা বলার আছে। প্রথমত, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কা‌ছে প্রশ্ন, ফকিরাপুল থেকে পল্টন থানার দূরত্ব কতটুকু? দিনের পর দিন ক্যাসিনো চলছে, মদের আসর বসছে, কোটি টাকা লেনদেন হচ্ছে আর থানা পুলিশ কিছুই টের পেল না? ঢাকা মহানগরেরর এত এত পুলিশ, গোয়েন্দা সংস্থা করলোটা কী? না‌কি আপনারাও বখরা পে‌তেন?

আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে আরেকটা প্রশ্ন। অবৈধভাবে ক্যাসিনো চালানোর অভিযোগে যুবলীগের ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়া আজ গ্রেপ্তার হ‌লো। আচ্ছা এতদিন তা‌কে গ্রেপ্তার করা হয়‌নি কেন? মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বলার পর গ্রেপ্তার করে আপনারা কী প্রমাণ করলেন? এতদিন প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দেননি বলে আপনারা ব্যবস্থা নেননি? তার মানে প্রধানমন্ত্রী না বললে কোনো রাজনৈতিক নেতা অপরাধ করলেও গ্রেপ্তার হবেন না?

যুবলীগ সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়া

‌দ্বিতীয় প্রশ্ন, রাজ‌নৈ‌তিক নেতা‌দের কা‌ছে। ক্যা‌সি‌নো আবিস্কা‌রের পর যুবলীগের চেয়ারম্যানের একটা বক্তব্য দেখলাম আজ। ‌তি‌নি প্রশ্ন ক‌রে‌ছেন, এখন যে ক্যাসিনো ব্যবসার কথা বলা হচ্ছে, সেগুলো যদি দীর্ঘদিন ধরে চলে তাহলে আইনপ্রয়োগকারী সংস্থা এতদিন নীরব ছিল কেন? ঠিক ব‌লে‌ছেন। আপনার কা‌ছেও আমার একই প্রশ্ন। আপ‌নি আজ ব‌লে‌ছেন, যুবলী‌গের কারও বিরু‌দ্ধে অ‌ভি‌যোগ থাক‌লে জানা‌তে। প্রমাণ পেলে যথাযথ ব্যবস্থা নে‌বেন। তা এতো‌দিন নেন‌নি কেন? আপনার দ‌লের লোক ক্যা‌সি‌নো চালায়, আর আপ‌নি জা‌নেন না? কেন জা‌নেন না?

আমার তৃতীয় প্রশ্ন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কা‌ছে। আপ‌নি নিশ্চয়ই বুঝ‌তে পার‌ছেন, যুবলীগ, ছাত্রলীগসহ আপনার দ‌লের বহু লোক বহু অ‌নিয়ম কর‌ছে। আপ‌নি কি বুঝ‌তে পার‌ছেন, আপ‌নি না বল‌লে আইন নি‌জের গ‌তি‌তে চ‌লে না! কোনো কিছু কাজ ক‌রে না। কেন এমন সংকট? এখন আপনার কা‌ছে অনুরোধ- আপনার দ‌লের সব মহাদুষ্ট লোকের বিরু‌দ্ধে ব্যবস্থা নিন। নাম ধ‌রে ধ‌রে ব্যবস্থা নি‌তে বলুন। দুর্নীতিগ্রস্ত নেতা আমলা সবার রাতের ঘুম হারাম করে দিন। দেশে সুশাসন কায়েম করুন।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, টানা তিন মেয়াদে ক্ষমতায় থেকে দেশটা যদি ঠিক করতে না পারেন, বঙ্গবন্ধুকে কী জবাব দেবেন? কী জবাব দেবেন জণগনকে? কী জবাব দেবেন ভবিষ্যত প্রজন্মকে? কাজেই বলবো, দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে কঠোর হোন।

ক্যাসিনো থেকে জব্দ করা মদের বোতল

সব‌শেষে আরেকটা কথা ব‌লি। আমি জা‌নি সরকা‌রের ভয়াবহ অর্থ সংকট র‌য়ে‌ছে। টাকা দরকার। আমি এই সংকট কাটা‌নোর দারুণ একটা কৌশল ব‌লে দি‌চ্ছি। গত দশ বছ‌রে য‌ত নেতা-আমলা অ‌নিয়ম করে কো‌টিপ‌তি হ‌য়ে‌ছে, সবার পে‌টে পাড়া দি‌য়ে টাকা বের করুন প্রধানমন্ত্রী।

হিসেব করে দেখুন, মাত্র দুই ঘন্টার অভিযানে শুধু ইয়াং ম্যানস ক্যাসিনো থেকে উদ্ধার ৩০ লাখ টাকা। এরকম ৬০টি ক্যাসিনোতে গত কয়েক বছরে কতো হাজার কোটি টাকা ব্যবসা হয়েছে? কোথায় গেছে সেই টাকা? শুধু ক্যাসিনো কেন! অ‌ারও ক‌ত খাত আছে। অসৎ লোকগু‌লোর পেট থেকে সেই টাকা বের করুন। দেখ‌বেন রাজ‌কোষ ভ‌রে যা‌বে। দেশের অর্থনী‌তিও চাঙ্গা হ‌বে।

Facebook Comments

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button