খেলা ও ধুলা

এখন চাই চোয়ালবদ্ধ লড়াই!

লিটনের স্ট্যাম্পিংটা হয় নাই। অনেকেই দেখলাম নতুন নিয়মের কথা বলছেন। হ্যাঁ, নতুন নিয়মেও এটা আউট হয় নাই। ষ্ট্যাম্প ক্যাম থেকে আম্পায়ার ব্যাপারটা একবারই দেখেছে, সেই এঙ্গেলে আউট হয় নাই!

বাদ দেই, এই বিতর্ককে খেলার পার্ট ধরে আগাই। সেই স্টাম্পিং না হলেও ১২০/০ থেকে এরকম তাসের ঘরের মতো ভেঙে পড়া জাস্টিফাইড হয় না। এটা হচ্ছে আসল কথা। লিটন থাকলে হয়তো ২০-৩০ রান বেশি হতো, হয়তো হতো না।

কিন্তু আজকে মুশফিক, মাহমুদুল্লাহ, মাশরাফি তিন সিনিয়রই যেভাবে আউট হয়েছেন সেটা প্রচণ্ড হতাশাজনক ছিল। মাশরাফি ছক্কা মারার পরের বলে কেন ডাউন দ্যা উইকেট আসলেন কে জানে, রিয়াদ হাতে ১৮-২০ ওভার থাকতে যে স্লগে গেলেন সেটা একপ্রকার অপরাধই ছিল! ২২২ বিলো পারের চেয়েও নিচের স্কোর। শুরুতে উইকেট লাগবে। ৫০ রানের মধ্যে ৩টা উইকেট লাগবে। তাহলে খেলায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা আসবে। এখন পর্যন্ত ভারতের সংগ্রহ ৮৫/৩, প্রতিদ্বন্দিতার আভাস মিলছে তাতে!

তবে আজকের বাংলাদেশ ইনিংসের ভালো দিক হলো লিটন দাসকে তাঁর ক্ষমতায় পাওয়া! অন্যদিকে এমনভাবে উইকেট পড়তে না থাকলে সে আরও ফ্লুয়েন্ট খেলতে থাকতো। লিটনকে আমি বিশুদ্ধ ব্যাটসম্যান বলি দেখে মানুষজন শেষ ম্যাচে আমার স্ট্যাটাসে আমাকে ট্রল করেছে। আজকে অন্য সবাইকে নিয়ে লিখলেও লিটনকে নিয়ে কিছু লিখিনি।

লিটন দাস, এশিয়া কাপ, লিটনের ফ্ল্যাট, মাল্লু কোটা, লিটনের সেঞ্চুরি

ক্রিকইনফোতে ভারতীয় একজন মন্তব্য করলো যে সে লিটনের মধ্যে রোহিত শর্মার মতো ফ্লুয়েন্সি দেখছে! লিটন আসলেই তাই। সামনে বিশ্বকাপ আসছে। তামিমের সঙ্গী হিসেবে আমাদের দ্বিতীয় ওপেনার হিসেবে লিটনকে এই ব্যাপারটা কন্টিনিউ করে যেতে হবে। মিডল অর্ডার প্রতিদিন কলাপ্স করবে না! সাকিব আসবে। আরেকটা ভালো দিক হলো, মিরাজ যে আসলে ব্যাটিং অল রাউন্ডার সেটা অন্তত মানুষকে বুঝাতে পারা। মিরাজকে উপরে ব্যাটিং করানোটাও ডিউ ছিল অনেকদিন ধরেই। আজকে অন্তত সে স্টার্ট দিয়ে নিজের অবস্থানটা জানান দিলো।

মিরাজ আদর্শ মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান। বিশ্বকাপের জন্য ১, ২ এ তামিম-লিটন, ৩ এ সাকিব/মিরাজ, ৪ এ মুশফিকের পরে ৫ এ মিরাজ/সাকিবকে নামাতে পারলে ভালো। তাহলে ৬, ৭ এ রিয়াদ, আরিফুল/সৌম্য স্লগ করতে পারে। আজকে কলাপ্স করলেও মিডল অর্ডার বা ব্যাটিং লাইন আপ নিয়ে চিন্তার কিছু দেখি না। বিশ্বকাপে ক্লিক করতে হবে।

এখন বোলিং-ফিল্ডিংয়ে সব দিতে হবে। খুব যে আশা আছে তা নয়। তবু ফাইটিং স্পিরিটটা দেখতে চাই।

আরও পড়ুন-

Facebook Comments

Tags

Related Articles

Back to top button