মরফিন আসক্তি থেকে কোকা-কোলা, আশ্চর্য এক ইতিহাস!

আমেরিকার গৃহযুদ্ধের শেষের দিকে, ১৮৬৫ সালের ১৬ এপ্রিলে জর্জিয়ার কলাম্বাসে মুখোমুখি সংঘর্ষে যুদ্ধের দুই পক্ষ ইউনিয়ন এবং কনফেডারেট ক্যাভালরি। যুদ্ধের কোনো একটি মুহূর্তে বুকে মারাত্মক এক ক্ষত নিয়ে সমরাঙ্গন ছাড়তে বাধ্য হলেন কনফেডারেট কর্নেল জন পেমবার্টন। পৃথিবীর সবচেয়ে বড় কোম্পানিগুলোর মধ্যে অন্যতম একটির পরোক্ষ শুরুটা বলা যেতে পারে এখান থেকেই! কর্নেলের বুকের ক্ষতটা ছিল খুবই ভয়াবহ, যা তাকে ঠেলে দিয়েছিল জীবন মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে! গভীর ক্ষতের কারণে খুব রক্তক্ষরণ হয়, ডাক্তাররা ভাবলেন আর বাঁচবেন না; তাই,…

"মরফিন আসক্তি থেকে কোকা-কোলা, আশ্চর্য এক ইতিহাস!"

লিওনেল মেসি চার ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ!

লিওনেল মেসি চার ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ! এমন একটি বাক্য শুনতে হবে, এমনটি ঘোরতর মেসির বিরুদ্ধ পক্ষের সমর্থকেরাও ভাবেননি হয়তো। কিন্তু বাস্তবতা বলছে- চিলির বিপক্ষে ঘরের মাঠে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচে সহকারি রেফারির উদ্দেশ্যে হাত নেড়ে কটুক্তি ও অপমানজনক ভাষা ব্যবহার করেন মেসি। তাই ফিফার ডিসিপ্লিনারি কমিটি চার ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ করেছে মেসিকে। এর ফলে একটু পরেই বলিভিয়ার বিপক্ষে হতে যাওয়া ম্যাচে অংশ নিতে পারছেন না মেসি। দলের বাইরে থাকতে হবে বাছাইপর্বের গুরুত্বপূর্ণ আরো তিনটি ম্যাচে। তিনটি…

"লিওনেল মেসি চার ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ!"

অ্যান্টার্কটিকা সম্পর্কে অবাক করা ১০টি তথ্য!

অ্যান্টার্কটিকার নামটি শুনতেই হয়তো আপনার চোখে শুধু বরফে ঢাকা সুবিশাল অঞ্চলে সাদা-কালো আদুরে পেঙ্গুইনের ছবি ভেসে উঠে। যুগের পর যুগ ধরে পৃথিবীর মানুষকে জানা-অজানা নানা বিষয়ে বিস্মিত করে রেখেছে অ্যান্টার্কটিকা। আমাদের গ্রহের সর্বদক্ষিণের এই স্থান খুবই দুর্গম, বরফে ঢাকা বিশাল অঞ্চলটিতে রয়েছে বিশুদ্ধ পানির বড় সঞ্চয়! অ্যান্টার্কটিকায় এমন অনেক কিছুই রয়েছে যা মানুষকে অবাক করে, রয়েছে অনেক পাহাড়-পর্বত, এমনকি জ্বলন্ত আগ্নেয়গিরি। পৃথিবীর সবচেয়ে ঠান্ডা এই জায়গাটি আদতে বসবাসের অযোগ্য মনে হলেও সেখানে কিছু প্রাণী বাস…

"অ্যান্টার্কটিকা সম্পর্কে অবাক করা ১০টি তথ্য!"

ড্রোনের মোকাবেলা করবে ঈগল!

সামরিক সক্ষমতা অর্জনে প্রযুক্তির দিক দিয়ে প্রতিনিয়ত চলছে এক দেশের আরেক দেশকে ছাপিয়ে যাওয়ার তীব্র প্রতিযোগিতা। গোয়েন্দা নজরদারিতে চালকবিহীন ড্রোন যে ব্যাপক ভূমিকা রাখছে, তাতে অনেক দেশই এসবের বিরুদ্ধে পাল্টা ব্যবস্থা নিয়ে রাখছে। কিন্তু এক্ষেত্রে ছোট চালকবিহীন ড্রোন ধ্বংসের জন্যে ফ্রান্স প্রযুক্তির নয়, দ্বারস্থ হয়েছে প্রকৃতির!  ফ্রান্সের সামরিক স্থাপনার আশেপাশে কয়েকটি ড্রোন উড়ার ঘটনা ও ২০১৫ সালের প্রেসিডেন্ট প্যালেস চত্বরে ড্রোন দেখা যাওয়ার পর নড়েচড়ে বসে ফ্রান্স কর্তৃপক্ষ। এরপরেই তারা শুরু করে নতুন আকাশ প্রতিরক্ষা…

"ড্রোনের মোকাবেলা করবে ঈগল!"

আপনিও আছেন সিআইএর নজরদারিতে!

স্মার্ট ফোন, স্মার্ট টিভি এবং সোশ্যাল মিডিয়া ম্যাসেজিং অ্যাপসসহ আরো বিভিন্ন ব্যবস্থাকে হ্যাকিংয়ের মাধ্যমে নিজেদের প্রয়োজনীয় অস্ত্রে তথা আড়িপাতার যন্ত্রে পরিণত করে নিতে পারে সিআইএ! এ সংক্রান্ত মোট ৮,৭৬১ টি নথি প্রকাশ করেছে উইকিলিকস, যা তাদের মতে এখন পর্যন্ত একসাথে প্রকাশিত সবচেয়ে বেশি গোপন নথি প্রকাশের ঘটনা। বিশাল আকারের এই নথি ফাঁস উইকিলিকসের ‘Year Zero’ অংশের প্রথম সিরিজ যেটিকে তারা অবিহিত করছে ‘Vault 7’ হিসেবে। ‘Year Zero’ তুলে ধরছে দুনিয়াব্যাপী সিআইএর গোপন হ্যাকিং প্রোগ্রামের মাধ্যমে…

"আপনিও আছেন সিআইএর নজরদারিতে!"

এরিয়া ৫১- পৃথিবীর সবচাইতে গোপন ও রহস্যময় স্থান

এরিয়া ৫১ পৃথিবীর সবচেয়ে বিখ্যাত গোপন জায়গা। এ নিয়ে মানুষের কৌতুহলের শেষ নেই, কৌতুহলটা খানিকটা বেশিই বরং। যুগের পর যুগ যে জায়গাটি কাটিয়ে দিচ্ছে চরম মাত্রার গোপনীয়তায়, তা নিয়ে কৌতুহল থাকাই তো স্বাভাবিক! কোথায় অবস্থিত এরিয়া ৫১? লাস ভেগাস থেকে ১০০ মাইলেরও কম দূরত্বে অবস্থিত নেভাডা টেস্ট সাইট (NTS)। এই NTS-এ পারমানবিক বোমার পরীক্ষা চালায় এটমিক এনার্জি কমিশন। সব কিছুই তো রৌদ্রজ্জ্বল দিনের মতো পরিষ্কার, তাহলে গোপনীয়তা কোথায়? না, অবশ্যই উল্লেখ্য জায়গাটি NTS নয়; দুনিয়ার…

"এরিয়া ৫১- পৃথিবীর সবচাইতে গোপন ও রহস্যময় স্থান"

লোমহর্ষক মিলিটারি অপারেশনগুলোর ‘কোড নেম’-এর গল্প

শ্বাসরুদ্ধকর, বিপজ্জনক এবং লোমহর্ষক বিশেষ মিলিটারি অপারেশনগুলোর নামগুলো বেশিরভাগ সময়েই অপারেশনগুলোর মতোই ‘ডেডলি’ শোনায়। অপারেশনগুলোর ‘কোড নেম’ সবসময়ই যে অপারেশনের কার্যক্রম কিংবা গুরুত্ব বহন করে, তা কিন্তু নয়। তবে নাম দেওয়ার ব্যাপারটা বেশ স্পর্শকাতর। মধ্যপ্রাচ্যে ইউএস মিলিটারির একটি অপারেশনের নাম দেওয়া হয়েছিল ‘অপারেশন ইনহেরেন্ট রিসল্ভ’, যা পরবর্তীতে বাতিল ঘোষণা করা হয়, কারণ নামটি খুব একটা মিলিটারি অপারেশনের সাথে যাওয়ার মতো ‘শ্রুতিমধুর’ হিসেবে বিবেচিত হয়নি! ‘ডেসার্ট স্টর্ম’, ‘ওভারলর্ড’, ‘রোলিং থান্ডার’, এই নামগুলো আকর্ষনীয় এবং মনে রাখার…

"লোমহর্ষক মিলিটারি অপারেশনগুলোর ‘কোড নেম’-এর গল্প"

যে স্টার্টআপগুলো বদলে দিয়েছে পৃথিবী

পৃথিবী বদলায়, বদলায় নতুন কিছু শুরুর মাধ্যমে। এই নতুন শুরুর পথ ধরে এক সময় উন্মোচিত হয় নতুন দিগন্ত। স্টার্টআপ অত্যাধুনিক বিশ্বকে দিয়েছে নতুন মাত্রা, আমাদের পরিচয় করিয়ে দিয়েছে এমন এক দুনিয়ার সাথে যেখানে সবকিছু হাতের মুঠোয়, কিংবা স্মার্ট ফোনের স্ক্রিনে। স্মার্ট ফোন, অবিশ্বাস্য গতির সার্চ ইঞ্জিন, সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং ইত্যাদি প্রযুক্তির (অ)সামান্য স্টার্টআপই আজকের পৃথিবীর অনন্য রুপ তুলে ধরে, যারা আজকে পরিণত হয়েছে মহীরুহে। Hewlett-Packard দুই জন মানুষের হাত ধরে এই প্রযুক্তি জায়ান্টের গল্পের শুরুটা ১৯৩০…

"যে স্টার্টআপগুলো বদলে দিয়েছে পৃথিবী"

বিখ্যাত ও কুখ্যাত সব অপারেশন, মিশন এবং উদ্ধার অভিযানগুলো!

দুনিয়াজুড়ে পরিচালিত হয়েছে অনেক বিখ্যাত ও কুখ্যাত বিশেষ অপারেশন, মিশন অথবা উদ্ধার অভিযান। সাম্প্রতিক ইতিহাসে রয়েছে এমন অনেক সফলতা ও ব্যর্থতার ঘটনা। অবিশ্বাস্য রকমের শ্বাসরুদ্ধকর পরিস্থিতির বর্ণনা সহজ নয়, কিন্তু সংক্ষেপে এমন কিছু উল্লেখযোগ্য ঘটনা তুলে ধরা হলো- ১৯৬১, বে অব পিগস ১৯৬০ সালে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডি ডি আইজেনহাওসার গোপন এক পরিকল্পনা করেন কিউবা দখলের, শেষ পর্যন্ত পরিকল্পনাটি সিআইকে অনুমোদন করেন পরবর্তী প্রেসিডেন্ট জন এফ কেনেডি ১৯৬১ সালে ক্ষমতায় বসার মাত্র তিন মাসের মাথায়। সিআইএ…

"বিখ্যাত ও কুখ্যাত সব অপারেশন, মিশন এবং উদ্ধার অভিযানগুলো!"

২০১৬ সালের মানবিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপনকারী কিছু ঘটনা…

আর মাত্র কয়টা দিন, এরপরই শেষ হয়ে যাবে ২০১৬। বিশ্বের সবার জন্য নিশ্চয়ই বছরটা একরকম যায়নি! ঘটনাবহুল এই বছরে অনেকেই হয়তো বিশ্বাস হারিয়ে ফেলেছেন মানবতার প্রতি। গুটিকয়েক মানুষের সিদ্ধান্তে সব হারিয়ে ফেলা মানুষেরা যে তথাকথিত সভ্য সমাজের মানুষের উপর, মানবতার উপর বিশ্বাস হারিয়ে ফেলবেন তা বলা বাহুল্য। টিভির পর্দায় কিংবা খবরের পাতায় যতটা না ভালো খবর তার চেয়ে বেশি খারাপ খবরে ভরা থাকে সবকিছু, তারপরও থেকে যায় একটা ছোট্ট  প্রশ্নবোধক চিহ্ন। ঘন কালো আধারের আড়ালেও…

"২০১৬ সালের মানবিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপনকারী কিছু ঘটনা…"

আমাদের সাঁওতালরা তো তিলকা মাঝিরই উত্তরসূরী!

১৭৭০ সাল, ঝাড়খন্ড, সাঁওতাল পল্লী। বছরটা যেন অভিশাপ নিয়ে এসেছে, একদিকে অনাবৃষ্টি তো অন্যদিকে ব্রিটিশদের ক্রমাগত অত্যাচার রয়েছেই। অনাবৃষ্টিতে প্রবল খাদ্যের অভাবে মারা যাচ্ছে সাঁওতালরা, পাহাড়ে ওদের জমি কেড়ে নিচ্ছে ব্রিটিশরা এবং সাথে যোগ দিয়েছে লোভী ভূমিদস্যুদের দল যারা সাঁওতালদের ভূমি দখলে নিয়ে অর্থের বিনিময়ে খুশি রাখছে সরকারকে। চাষের জমি কমে যাচ্ছে, বসবাসের জায়গা হারাচ্ছে, খাদ্যের অভাবে বাড়ছে অস্থিতিশীলতা। শাসকগোষ্ঠী কোন ইতিবাচক ব্যবস্থা না নিয়ে আরো বেশি কঠোর অবস্থান নিয়ে নির্যাতনের মাত্রা বাড়িয়ে দিচ্ছে। এভাবে…

"আমাদের সাঁওতালরা তো তিলকা মাঝিরই উত্তরসূরী!"

এ কেমন ট্রাম্পবাজি! (পর্ব-এক)

বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে আলোচিত চরিত্র সদ্য নির্বাচিত আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। খোদ আমেরিকাতে ট্রাম্পের জয় মেনে নিতে পারছেন না অনেক মার্কিন নাগরিকরাই, চলছে আমেরিকা জুড়ে ট্রাম্পবিরোধী বিক্ষোভ। ট্রাম্প নিজেকে পরিচয় করিয়ে দিয়েছেন চরম মাত্রায় একজন বর্ণবাদী, নারীবিদ্বেষী, অভিবাসন বিরোধী ও নেতিবাচক চরিত্র হিসেবে। তাকে নিয়ে এখন আমেরিকানরাই রয়েছে দোটানায়। গুগলের মতে বিরাট অংকের আমেরিকানরা গুগলে খুঁজেছেন কিভাবে ট্রাম্পকে সরানো যায় প্রেসিডেন্ট পদ থেকে এবং কীভাবে কানাডা যাওয়া যায়! নেতিবাচক চরিত্রকে সামনে রেখে ট্রাম্প কিভাবে হোয়াইট…

"এ কেমন ট্রাম্পবাজি! (পর্ব-এক)"